May 19, 2024, 12:19 pm

বিজ্ঞপ্তি :
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দ্বায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
শিরোনাম :
সুজানগরে ১৪ বছরের এক কিশোরীকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ পদোন্নতি পেয়ে সিনিয়র সহকারী সচিব হলেন তেঁতুলিয়ার এসিল্যান্ড মাহবুবুল হাসান ঝিনাইদহে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আহত ২১ গোদাগাড়ীতে ডিজিটাল প্রিপেইড মিটার স্থাপন বাতিলের দাবিতে মানববন্ধন উপজেলা চেয়ারম্যান ময়নাকে গণসংবর্ধনা আশুলিয়ায় সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা-কুপিয়ে এক যুবক আহত ও নারীদের শ্লীলতাহানির অভিযোগ ঝড়-বৃষ্টি আঁধার রাতে, জনগণ আছে শেখ হাসিনার সাথে- প্রতিমন্ত্রী শহীদুজ্জামান সরকার তেঁতুলিয়ায় পুরোনো ইট দিয়ে বাজার সেড নির্মাণ নড়াইলে বিলুপ্তির পথে বাবুই পাখির বাসা সাতক্ষীরার তালায় ট্রাক উল্টে ২ শ্রমিক নিহত আহত ১১
আগৈলঝাড়ায় ভক্ত ও দর্শনার্থীদের ঢল দূর্গাপুজা উপলক্ষে নির্মিত শঙ্খ ও প্রদীপের আদলে তৈর গেটের থিম দেখতে

আগৈলঝাড়ায় ভক্ত ও দর্শনার্থীদের ঢল দূর্গাপুজা উপলক্ষে নির্মিত শঙ্খ ও প্রদীপের আদলে তৈর গেটের থিম দেখতে

বি এম মনির হোসেনঃ-

বরিশালের আগৈলঝাড়ায় দূর্গাপুজা উপলক্ষে নির্মিত শঙ্খ ও প্রদীপের আদলে তৈর গেটের থিম দেখতে ভক্ত ও দর্শনার্থীদের ঢল ১৫জনের একটি দল ভারতে প্রশিক্ষণ শেষে নির্মাণ করা স-ুদৃশ্য তোরণ নিয়ে আলোড়ন। ভক্ত আর দর্শনার্থীদের মন জুড়ানো থীম, দৃষ্টি নন্দন সুদৃশ্য তোরণ নির্মাণের মাধ্যমে আগৈলঝাড়া উপজেলার ১৫৮টি পুজা মন্ডপের কেন্দ্র বিন্দুতে পরিনত হয়েছে বারপাইকা সার্বজনীন দুর্গা মন্দির। উপজেলা পর্যায়ে দেশের সবচেয়ে বেশি পুজা অনুষ্ঠিত হয়েছে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলায়। উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নের ১৫৮টি মন্ডপে শুক্রবার মহাধুমধামে ষষ্ঠী পুজার মধ্যদিয়ে শারদীয় দূর্গাপুজা শুরু হয়েছে। ২৪ অক্টোবর মঙ্গলবার দশমী তিথিতে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে পুজার আচার শেষ হবে। উপজেলার বারপাইকা সার্বজনীন দূর্গা মন্দিরের সভাপতি সঞ্জয় রায় জানান, অন্যান্য বছরের মতো এ বছরও উপজেলার গন্ডি পেরিয়ে জেলা জুড়ে দর্শনার্থীদের মধ্যে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছে আগৈলঝাড়া উপজেলার রত্মপুর ইউনিয়নের অজপাড়া গাঁয়ের বারপাইকা সার্বজনীন দূর্গা মন্দিরের সুদৃশ্য তোরণ।
পুরো তোরণ জুড়ে রয়েছে বিভিন্ন দেব-দেবীর মুর্তির ছবি ও সাথে রয়েছে মন জুড়ানো থিম। শঙ্খ ও প্রদীপের আদলে তৈরী গেটের এই থিম বাস্তবায়নের জন্য এলাকার ১৫জনের একটি দল ভারতে প্রশিক্ষণ দিয়ে স্বেচ্ছাশ্রমে নির্মাণ করেছে স-ুদৃশ্য তোরণ। সরেজমিনে দেখা গেছে, শঙ্খ ও প্রদীপের আদলে তৈরী গেটের মধ্যে স্থাপন করা হয়েছে বিভিন্ন দেব দেবীর মূর্তি। দক্ষ কারিগরদের সুনিপুণ হাতে তৈরী গেট থেকে মন্দির পর্যন্ত নৌকার উপরে দিয়ে হেঁটে ভিতরেই প্রবেশ করলেই চোখে পরবে মেট্টো রেল যেন বাস্তবতার মূর্ত প্রতীক হয়ে ধরা দিয়েছে দর্শকদের কাছে।বারপাইকা গ্রামের যুব সমাজের উদ্যোগে নয়নাভিরাম সুদৃশ্য নির্মাণ শৈলীর তোরণ নির্মানের কাজ করেছেন এলাকার স্বেচ্ছাশ্রমের লোকজন। পুজার এক মাস আগে থেকে তারা কাজে লেগে সেই শ্রম স্বার্থক করেছে বরিশালের দর্শনার্থীসহ বিভিন্ন জেলা থেকে আগত দর্শনার্থীদের ভূয়শী প্রসংশায়। সূত্র মতে, ১৯৬৭ সাল থেকে রত্নপুর ইউনিয়নের বারপাইকা গ্রামে সার্বজনীন দূর্গা পুজা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। বারপাইকা যুবসমাজের উদ্যোগে গত ১০ বছর ধরে বাহারী ভিন্ন রকমের আয়োজনে পুজার ব্যাপকতা লাভ করছে। দিন-রাত স্বেচ্ছাশ্রমে কঠোর পরিশ্রম করে বাঁশ, কাঠ, কাপড় ও ককশীটসহ আনুসাঙ্গিক মালামাল দিয়ে কাজ করে নির্মান করা হয়েছে সু-দৃশ্য আগৈলঝাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুনীল কুমার বাড়ৈ বলেন, উপজেলা পর্যায়ে ১৫৮টি মন্দিরে পুজার মাধ্যমে বরিশাল বিভাগেরতো নিশ্চয়ই; দেশের মধ্যে সবচেয়ে বেশি পুজা হচ্ছে আগৈলঝাড়ায়।এরমধ্যে বারপাইকা কেন্দ্রীয় সার্বজনীন পুজা মন্ডপে বিগত ১০বছর যাবত ব্যতিক্রম সব আয়োজন করা হয়। যা সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মাঝে ব্যাপক উৎসাহ আর ইতিহাস হয়ে আসছে।

Please Share This Post in Your Social Media






© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD