December 9, 2023, 8:14 am

বিজ্ঞপ্তি :
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দ্বায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
শিরোনাম :
আজ ত্রিশাল মুক্ত দিবস ঠাকুরগাঁওয়ে সহকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় ৯ জন অসৎ অবলম্বনকারী পরীক্ষার্থীকে গ্রেফতার ঐক্যবদ্ধ থেকে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে হবে – মোংলায় বর্ধিত সভায় বক্তারা পুলিশের কাজে বাঁধা না*শকতা মামলায় ছাত্রদল নেতা আরিফুল ইসলাম গ্রে*ফতার পানছড়িতে ৬৪০ পিচ ই*য়াবা উদ্ধারসহ ১ জন মাদক ব্যাবসায়ী গ্রে*ফতার নিজেদের মধ্যে শ*ক্রতায় সাংবাদিকরা নৃশংস হামলা মামলার শি*কার হয়-পুলিশের ভূমিকা কি? আজ ৯ ডিসেম্বর ঐতিহাসিক কপিলমুনি মুক্ত দিবস নড়াইলে ভোঁদড় দিয়ে মাছ শিকার ঐতিহ্যকে টিকিয়ে রেখেছে তারা আদালতের নির্দেশনা উপেক্ষা করে নালিশী সম্পত্তিতে নির্মাণ কাজ করার চেষ্টা পাইকগাছায় খুলনা টাইমস পত্রিকার ৫ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত
পাইকগাছার লতা ইউনিয়নে সুলভ মুল্যে খাদ্যশষ্য বিতরণে নানা অনিয়ম ও অর্থ লেনদেনের অভিযোগ

পাইকগাছার লতা ইউনিয়নে সুলভ মুল্যে খাদ্যশষ্য বিতরণে নানা অনিয়ম ও অর্থ লেনদেনের অভিযোগ

পাইকগাছা(খুলনা) প্রতিনিধি।।
খুলনার পাইকগাছার লতা ইউনিয়নে সুলভ মুল্যে খাদ্যশস্য বিতরণে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত ১৭,১৮ ও ১৯ সেপ্টেম্বর ১৫ টাকা দরে ৩০ কেজি করে চাউল দেয়া হয়েছে কার্ড প্রতি। ৫১০ জনকে দেয়া হলেও ১০৬ জনের নামে কার্ড থাকলেও অসৎ উদ্দেশ্য তার চাউল না দিয়ে ৫শ থেকে আড়াই হাজার পর্যন্ত টাকা নিয়ে নতুন আরও ১০৬ টি কার্ড দেয়া হয়েছে। নতুনদের চাউল দিলেও পুরাতন শতাধিক ব্যক্তিকে চাউল না দেয়ায় এলাকায় তারা ফুসে উঠেছে। এব্যপারে ডিলার পংকজ রায় জানান মিথুন সরকার নামে কম্পিউটার ম্যান ও কিছু কিছু ইউপি মেম্বররা টাকার বিনিময়ে এসব করে পরিবেশ নষ্ট করছে।তবে চাউল আছে উপজেলা থেকে নাম আসলে তাদেরও দেয়া হবে। তাতে ইউনিয়নে মোট ৬১৯ জন মত কার্ডধারী ব্যক্তি ১৫ টাকা দরে চাউল পাবে। যারা চাউল পায়নি এর মধ্যে তেুলতলার কৃষ্ণ পদ মুনির ছেলে শুভংকর মুনি কার্ড নং ১৮৪, গংগারকোনা রাম চন্দ্র মন্ডলের ছেলে ক্ষিতিষ মন্ডল, কার্ড নং ২০৭ পুলিন মন্ডলের ছেলে কালিপদ মন্ডল,কার্ড নং ৫৮৩, বিপ্লব সরকারের স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা বিশ্বাস, কার্ড নং ২০২, কাঠামারি ললিত মন্ডলের ছেলে সুকুমার মন্ডল,কার্ড নং ২৬১, এ অভিযোগ করে বলেন আমাদের মত ১০৬ জনের চাউল আত্মসাৎ এর জন্য এটা করা হয়েছে। এব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান কাজল কান্তি বিশ্বাস বলেন অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া মাত্রই কম্পিউটার ম্যান মিথুনকে সরিয়ে দিয়েছি। কিছু নাম ডাবলিং হয়েছে সংশোধনী আসলেই প্রাপ্যদের চাউল দেওয়া হবে।

ইমদাদুল হক,
পাইকগাছা,খুলনা।

Please Share This Post in Your Social Media






© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD