বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৮:৩৩ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
শৈলকুপায় জমি নিয়ে বিরোধ সংঘর্ষে ১৫ জন আহত নওগাঁর আত্রাইয়ে শেখ হাসিনার প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত বিয়ের জন্য চাপ দেয়ায় সুজানগরে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা পাইকগাছায় জোড় পূর্বক গৃহবধূকে ধর্ষনের চেষ্টা;গণ পিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ পাইকগাছায় নার্সারীতে জোড় কলম তৈরীতে ব্যাস্ত সময় পার করছে শ্রমিকরা সুজানগরে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে মুন্সীগঞ্জে আ’লীগের আলোচনা সভা ও র‌্যালী পঞ্চগড়ে কাঁচা চা পাতার ন্যায্যমূল্যের দাবিতে সভা ময়মনসিংহ জেলায় শ্রেষ্ঠ এসিল্যান্ড জিন্নাত শহীদ পিংকি শেখ হাসিনা দেশে ফিরে এসেছেন বলেই দেশে গণতন্ত্র ফিরেছে-ত্রিশালে নয়ন
নাগরপুরে শিশু চয়নের নির্যাতনকারীর শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন।

নাগরপুরে শিশু চয়নের নির্যাতনকারীর শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন।

মোঃ আমজাদ হোসেন রতন, নাগরপুর(টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি। শিশু চয়নের নির্যাতনকারীর শাস্তির দাবিতে টাঙ্গাইলের নাগরপুরে মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধ করেছে। নাগরপুর উপজেলার তীরছা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা আজ মঙ্গলবার, ১৩-১১-১৮ইং সকাল বেলা তারা টাঙ্গাইল-আরিচা আঞ্চলিক মহাসড়কের তীরছা নামক স্থানে নির্যাতনকারীর শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধ করে রাখে ।
উপজেলার তীরছা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ১ম শ্রেণির দুই সহপাঠীর ঝগড়াকে কেন্দ্র করে, প্রতিপক্ষ অভিভাবকের আগাতে চয়ন (৬) নামে ১ম শ্রেণির এক ছাত্র গুরুতর আহত হয়। আহত চয়ন তীরছা গ্রামের প্রবাসী গোপাল সরকারের ছেলে। ঘটনাটি গত বৃহস্পতিবার ০৮ নভেম্বর, সন্ধ্যায় তীরছা গ্রামে ঘটে। উল্লেখ্য, চয়ন ও তার সহপাঠী ভালকুটিয়া গ্রামের বাবু মিয়ার ছেলে বাধন (৬) উপজেলার তীরছা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ১ম শ্রেণিতে পড়ে। স্কুলে দুই সহপাঠীর মধ্যে ঝগড়ার সৃষ্টি হয়। পরে সন্ধ্যায় বাধনের বাবা চয়নের বাড়িতে গিয়ে শিশু চয়নের কান ধরে এলোপাথারি চড়-থাপ্পর মারে ও সাসিয়ে যায় যে, ভবিষ্যতে আর কখনো ঝগড়া করতে এলে মেরে বস্তায় ভরে পুঁতে ফেলা হবে এবং বাড়ি ঘড় জ্বালিয়ে দেবে বলেও হুমকি দেয়া হয়। এ ঘটনার পরে শিশু চয়নের শারিরীক অবস্থা খারাপ হলে তাকে নাগরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। মর্মান্তিক এ ঘটনার খবর পেয়ে স্কুলের শিক্ষক, ইউপি সদস্যসহ গ্রামবাসী চয়নকে দেখতে আসেন। তারা এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন।
এ ব্যাপারে আইনগত ব্যাবস্থা গ্রহণের জন্য নাগরপুর থানায় লিখিত অভিযোগ করা হলেও আইনানুগ ব্যবস্থা না হওয়ায় অভিভাবক ও শিক্ষার্থীবৃন্দ আজ সকালে মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধ করে নির্যাতনকারীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করে। নাগরপুর থানাপুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে নির্যাতনকারীর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণে আশস্ত করলে অভিভাবক ও শিক্ষার্থীগণ সড়ক অবরোধ উঠিয়ে নেয়।
এ ব্যাপারে থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আলম চাঁদ জানান, অভিযোগের তদন্ত কর্মকর্তা প্রশিক্ষণে যাওয়ায় তদন্ত কাজ বিলম্ব হয়েছে। মানববন্ধন ও সড়ক অবরোধের খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ প্রেরণ করি। দ্রুত শিশু নির্যাতনকারীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সাংবাদিকদের জানান।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD