রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১০:১২ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
গণমাধ্যম কর্মী ও শিক্ষকসহ মধ্যবিত্তদের মানবেতর জীবনযাপন-হচ্ছে মানবাধিকার লঙ্ঘন পাইকগাছায় বিশ্ব খাদ্য দিবস ও জাতীয় ইঁদুর নিধন অভিযান উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত শৈলকুপায় আ’লীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে অর্ধশত আহত বাড়িঘার ভাংচুর মন্দিরে হামলা-ভাংচুরের প্রতিবাদে ঝিনাইদহে মানববন্ধন ঝিনাইদহে ভাতিজার লাঠির আঘাতে চাচা খুন তানোরের কাঁমারগা ইউপিতে এগিয়ে মসলেম সার্ক কালচারাল ফোরামের “গোল্ডেন জুবলী অ্যাওয়ার্ড-২০২১” পদক পেলেন সিনিয়র সাংবাদিক এস মিজানুল ইসলাম দেশ ও জাতির সংকটে রুদ্রের কবিতা হয়ে উঠেছে তারুণ্যের হাতিয়ার – স্বরণানুষ্টানে বক্তারা শক্তি দিয়ে নয় মানুষের ভালবাসা দিয়ে জয়ী হতে চাই – চেয়ারম্যান প্রার্থী আরেফিন চৌধুরীর গোদাগাড়ীতে নৌকার প্রার্থী সোহেলের পথ সভায় বৃষ্টি উপেক্ষা করে জনতার ঢল।
উজিরপুর-বারানীপাড়া সংসদীয় আসন. . বিএনপির মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন এ্যাড. এস এম এ বকর-সান্টু-আলাল-জামাল !! তৃনমুলে আলোচনার শীর্ষে বকর।।

উজিরপুর-বারানীপাড়া সংসদীয় আসন. . বিএনপির মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন এ্যাড. এস এম এ বকর-সান্টু-আলাল-জামাল !! তৃনমুলে আলোচনার শীর্ষে বকর।।

ডেস্ক: বরিশাল-২ (উজিরপুর-বানারীপাড়া) আসনে বিএনপির মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন কেন্দ্রীয় সেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম সম্পাদক ও বার কাউন্সিলের সাবেক উপ-সচিব এ্যাডভোকেট এস এম এ বকর। গতকাল দুপুর আড়াইটার দিকে এস এম এ বকরের পক্ষে এ্যাড এস এম এম বকরের ছোট ভাই অধ্যাপক (এ্যাড) মিজানুর রহমান, এ্যাডভোকেট একে আজাদ, এ্যাডভোকেট মাহফুজুর রহমান, এ্যাডভোকেট শফিকুল ইসলাম. এ্যাডভোকেট মনিরুজ্জামান, ও এাডভোকেট. রায়হান মল্লিক নয়নসহ বিএনপি নেতারা কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন। এর পরপরই এ আসনে অপর মনোনয়ন প্রত্যাশি বিএনপি নেতা এস সরফুদ্দিন আহম্মেদ সান্টু, কেন্দ্রীয় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব এ্যাড সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল. সাবেক হুইপ শহিদুল হক জামাল মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করেন। এসময় বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নেতাকর্মিদের পদচারনায় উৎসব মুখর পরিবেশের সৃস্টি হয়।
এদিকে বরিশাল-২ আসনে বিএনপি নেতা এ্যাডভোকেট এস এম এ বকর মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করায় তৃনমুল নেতাকর্মিদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ ও উদ্দীপনা বিরাজ করছে। মনোনয়নপত্র সংগ্রহের খবরে উজিরপুর থেকে সাতলা আর বানারীপাড়া থেকে বিশারকান্দি প্রতিটি ইউনিয়ন ও গ্রাম পর্যায়ে বিএনপি কর্মি সমর্থকদের মাঝে এ্যাডভোকেট এস এম এ বকরকে নিয়ে শুরু হয়েছে ব্যাপক আলোচনা। বিশেষ করে বিএনপির দূর্দিনে নেতা কর্মিদের খোজ খবর নেওয়া ও হামলা মামলায় জর্জরিত নেতাকর্মিদের পাশে থাকা. আর্থিকভাবে সহায়তা এবং সরকার বিরোধী আন্দোলন সংগ্রামে সক্রিয় অংশ গ্রহন করার জন্যই কর্মি সমর্থকদের মধ্যে এ উৎসাহ বলে জানান তৃনমুলের বিএনপির একাধিক নেতাকর্মি। এছাড়া এ আসন থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশি অপর বিএনপি নেতা এস সরফুদ্দিন আহম্মেদ সান্টুর বিভিন্ন বিতর্কিত কর্মকান্ড, কমিটি গঠনে স্বজনপ্রীতি, ত্যাগী নেতাকর্মিদের অব-মূল্যায়ন ও আন্দোলন সংগ্রামে নেতাকর্মিদের পাশে না থাকাসহ বিএনপির দূর্দিনে ইচ্ছাকৃতভাবে ঢাকা কিংবা দেশের বাইরে অবস্থান করার কারনেই তৃনমুলের নেতাকর্মিদের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃস্টি হয়েছে। এছাড়া নির্যাতিত নেতাকর্মিদের খোজ খবর না নেওয়া ও আন্দোলন সংগ্রামে অংশ না করার কারনেই দিন দিন তার জনপ্রিয়তায় ব্যাপক ধ্বস নেমেছে। আর সান্টুর এ ব্যার্থতাকে পুরোপুরি কাজে লাগিয়েছেন এ্যাডভোকেট এস এম এ বরক। অপর মনোনয়নপত্র সংগ্রহকারী নেতারা কেউই দূর্দিনে উজিরপুর বানারীপাড়ার কোন নেতাকর্মির পাশে ছিলেন না বলে জানান নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক নেতা কর্মি।
স্থানীয় সূত্র জানায়, বিগত ২০০৯ নির্বাচনে বিএনপি নেতা এস সরফুদ্দিন আহম্মেদ সান্টু বিপুল ভোটের ব্যাবধানে আওয়ামী লীগ নেতা মনিরুল ইসলাম মনির কাছে হেড়ে যান। বিএনপির দূর্গ হিসেবে খ্যাত উজিরপুর-বানারীপাড়ায় বিএনপির প্রার্থির এমন পরাজয় মেনে নিতে পারেন নি বিএনপি নেতা কর্মি ও সমর্থকরা। নির্বাচনে পরাজিত হয়ে এলাকা ছাড়েন এস সরফুদ্দিন আহম্মেদ সান্টু। এর পর থেকে তিনি মাঝে মধ্যে এলাকায় এলেও সরকার বিরোধী কোন আন্দোলন সংগ্রামে তার সক্রিয় অংশ গ্রহন ছিলো না। এছাড়া সরকার বিরোধী আন্দোলন সংগ্রাম করতে গিয়ে যারা হামলা মামলার শিকার হয়েছেন তাদের পাশে এসে দাড়াঁন নি তিনি। এমনকি শিল্প পতি হয়েও আর্থিক ভাবেও কোন নেতা কর্মিদের পাশে দাঁড়াননি সান্টু। শুধু আন্দোলন সংগ্রামে মাঠে না থাকাই নয়, দূদির্নে মাঠে থাকা ত্যাগী নেতাকর্মিদেরমধ্যে গ্রুপিং সৃস্টি করে বিএনপির নেতাকর্মিদের মধ্যে বিরোধ সৃস্টি করেছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া ত্যাগী নেতাকর্মিদের বাদ দিয়ে পছন্দের লোকজনদের দিয়ে পকেট কমিটি গঠন করে সব চেয়ে বেশি বিতর্কে জড়ান সান্টু। সাবেক রাস্ট্রপতি আব্দুর রহমান বিশ^াসের মৃত্যুর পর বিএনপির গুরুত্বপূর্ন অধিকাংশ নেতাকর্মি বরিশাল এলেও বরিশাল অবস্থান করার পরও লাশ দেখতে আসেন নি সান্টু। যদিও ওই দিন তিনি বানারীপাড়া অবস্থান করে একটি ভুরিভোজ অনুষ্ঠানে অংশ নেন। এ ঘটনায় বিএনপি নেতাকর্মিদের মধ্যে তীব্র প্রতিক্রিয়া ও ক্ষোভের সৃস্টি হয়। এস সরফুদ্দিন আহম্মেদ সান্টুর এ ধরনের কর্মকান্ডে তৃনমুলে যখন তিনি জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পরেন ঠিক তখনই দলের হাল ধরেন কেন্দ্রীয় সেচ্ছাসেবক দলের যুগ্ম সম্পাদক ও বার কাউন্সিলের সাবেক উপ-সচিব এ্যাডভোকেট এস এম এ বকর। দীয় দিন ধরে তিনি কেন্দ্রীয় কিংবা স্থানীয় বিএনপির প্রতিটি আন্দোলন সংগ্রামে নেতাকর্মিদের পাশে থেকে তাদের মনোবল চাঙ্গা করে চলেছেন। শুধু তাই নয়, হামলা মামলায় জর্জরিত বিএনপি নেতাকর্মিদের আর্থিক সহায়তা করে তাদের উৎসাহিত করছেন। এছাড়া কেন্দ্র ঘোষিত ও স্থানীয় বিএনপির প্রতিটি আন্দোলনে নেতাকর্মিদের সাথে সামিল হয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে বানারীপাড়া উপজেলা বিএনপির এক নেতা বলেন, সান্টুর সেচ্ছাচারিতায় বিএনপির নেতাকর্মিরা অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে। বানারপাড়া বাসী তার বিকল্প নেতৃত্ব চায়। এ্যাডভোকেট এস এম এ বকরের মতো নেতা জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন পেলে বিএনপি নেতাকর্মিরা অবশ্যই তার বিজয় সু-নিশ্চিত করতে কাজ করবে। তবে সান্টু প্রার্থি হলে বিএনপির নেতাকর্মিরাই তাকে বর্জন করবে বলেও মন্তব্য করেন এ বিএনপি নেতা। এদিকে মনোনয়পত্র সংগ্রহ করা কেন্দ্রীয় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব এ্যাড সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, সাবেক হুইপ শহিদুল হক জামাল দীর্ঘ দিন ধরে এলাকায় অবস্থান করেন নি। এমনকি দূর্দিনে কোন নেতা কর্মির খোজ খবর কিংবা তাদের পাশে দাড়ান নি। এ কারনে এদের নিয়ে বিএনপির নেতা কর্মিদেরমধ্যে কোন আলোচনা কিংবা আগ্রহ নেই।
মনোনয়নপত্র সংগ্রহের বিষয়ে এ্যাডভোকেট এস এম এ বকর বলেন, তিনি দীর্ঘ দিন ধরে দলের জন্য কাজ করছেন। হামলা মামলা ও নির্যাতনের শিকার নেতাকর্মিদের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। নেতাকর্মিদের নামে দায়ের হওয়া মামলা পরিচালনার পাশাপাশি তাদের মামলার খরচ যোগাতে আর্থিক ভাবে সহায়তা করছেন তিনি। এছাড়া উজিরপুর বানারীপাড়ায় বিভিন্ন কর্মসূচিতে সক্রিয়ভাবে কাজ করছেন তিনি। এ কারনে আসন্ন নির্বাচনে তিনি বিএনপির প্রার্থি হিসেবে। বিএনপির মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করেছেন। তিনি আশাবাদী দল তাকে মূল্যায়ন করবে। বিএনপির মনোনয়ন পেলে বিপুল ভোটের ব্যাবধানে বিজয়ী হবেন বলেও আশাবাদী এ বিএনপি নেতা।#####

নিকুঞ্জ বালা পলাশ/সম্পাদক/নতুনবাজার।।

Please Share This Post in Your Social Media



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD