শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৫:৪১ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
দালালরা নিয়েছে লাখ লাখ টাকা: অভিযানে গ্যাসের ৫ শতাধিক অবৈধ সংযোগ বিচ্ছিন্ন! কেউ কারো বিরুদ্ধে বদনাম না করাই মঙ্গল-প্রকৃত সাংবাদিকদের ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান ঘন ঘন যান্ত্রিক ত্রুটিতে আতংকে থাকেন রোগীরা ঝিনাইদহ জেনারেল হাসপাতালের লিফট চালায় সিকিউরিটি গার্ড সুজানগর পৌরসভার উদ্যোগে পারিবারিক সাইলো বিতরণ সুজানগরে স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম করার ঘটনায় অভিযুক্ত ফাহাদ গ্রেফতার সুজানগরে স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম, অভিযুক্ত বখাটের গ্রেফতার দাবিতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন সুজানগর পৌরসভা ঝিনাইদহ মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত ১ মুন্সীগঞ্জে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১ নড়াইলের ছাত্রলীগের সাবেক দুই নেতা সিলেটে থেকে গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ
কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসির আদেশ

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসির আদেশ

রাকিব ইসলাম।।।
কুষ্টিয়া, ১২ জুলাই ২০১৮ ॥ কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় গৃহবধূ মিলি আক্তার কুটি হত্যা মামলায় স্বামী তরিকুল ইসলাম টিটু (৩৬) কে ফাঁসির আদেশ ও অর্থদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত।
বৃহস্পতিবার বেলা ১২টায় কুষ্টিয়ার জেলা দায়রা ও জজ আদালত(নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল) এর বিচারক মুন্সী মো: মশিয়ার রহমান এ রায় দেন। এ রায় ঘোষনার সময় আসামী তরিকুল ইসলাম পলাতক ছিলো।
নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল পিপি আকরাম হোসেন দুলাল জানান, ১৯৯৮ সালে কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা উপজেলার নওঁদা পাড়া গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমান হাবিবের মেয়ে মিলি আক্তার কুটির সাথে পাশের গ্রামের রিয়াজুল ইসলাম ওরফে রিজুর ছেলে তরিকুল ইসলাম টিটুর বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের দাবিতে তরিকুল ও তার পরিবার কুটির উপর নির্যাতন চালাতো। যৌতুকের টাকা না দিতে পারায় কয়েকদফায় শশুর বাড়ির লোক তাকে বাপের বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়। সর্বশেষ ২০০৯ সালে ০৬ জুলাই বাপের বাড়িতে থাকা অবস্থায় বাড়ী থেকে ডেকে স্বামী তরিকুল ও কার পরিবারের লোকজন মিলিকে হত্যা করে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়।
ঘটনার দিন ভেড়ামারা গৃহবধূর ভাই জাহাঙ্গীর ইসলাম বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘ শুনানী শেষে বিচারক আসামীর অনুউপস্থিতিতে ফাঁসির আদেশ ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেন।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD