মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৫:২৩ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
গাজীপুরে চোলাই মদ বিক্রির সময় নারীসহ গ্রেফতার দুই অপরাধ ধামাচাপা দিতে ৩৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের সাংবাদিক সম্মেলন নবীগঞ্জে বাসের ধাক্কায় অটোরিকশার চালকসহ দুইজন নিহত কুসিক নির্বাচনে প্রার্থী হলেন সিআইপি এমরান খান আজ শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আশুলিয়ায় কুকুরের মাংস দিয়ে বিরায়ানী বিক্রির অভিযোগে ১ জন আটক পাইকগাছা থানার আসাদুজ্জামান ও মোঃ নাসির উদ্দিন খুলনা জেলা শ্রেষ্ট কর্মকর্তা নির্বাচিত যে কোন দুর্যোগে সিপিপি’র কর্মীরা জীবন বাজী রেখে মানুষের কল্যানে কাজ করেন- এমপি- বাবু খুলনার দক্ষিঞ্চালে মৌসুমের শুরুতেই ভাইরাসে মরে যাচ্ছে চিংড়ি মাছ; দুশ্চিন্তায় চাষিরা বিরামপুরে বোরো ধান সংগ্রহে উন্মক্ত লটারির মাধ্যমে কৃষক নির্বাচন
ভারত থেকে শিশুসহ ১২ বাংলাদেশী নারী-পুরুষ দেশে ফিরেছে

ভারত থেকে শিশুসহ ১২ বাংলাদেশী নারী-পুরুষ দেশে ফিরেছে

আজিজুল ইসলাম,যশোর জেলা প্রতিনিধিঃ
দেড় বছর আগে ভারতে পাচার হওয়া এক শিশুসহ ৪ নারী ও ৮ বাংলাদেশী নৌ-শ্রমিককে ¯^দেশ প্রত্যাবর্তন এবং ট্রাভেল পারমিটের মাধ্যমে ফেরত দিয়েছে ভারত। শনিবার (৩০ জুন) সন্ধ্যা ৭ টার সময় ভারতের পেট্রাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে ৮ শ্রমিক ও বিজিবির কাছে শিশু সহ ৪ নারীকে হস্তান্তর করেন।

আনুষ্ঠানিকতা শেষে বেনাপোল চেকপোষ্ট পুলিশ ইমিগ্রেশন ৮ জন নৌ-শ্রমিককে এবং বিজিবি সদস্যরা ৪ জন নারীকে বেনাপোল পোর্ট থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছেন। সেখান থেকে বাংলাদেশ নৌযান ফেডারেশনের সভাপতি শাহ আলম ৮ জন নৌ-শ্রমিককে গ্রহন করেন তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করার জন্য। অপরদিকে শিশুসহ ৪ জন নারীকে রাইটস যশোর গ্রহন করেছেন। পরে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে। ফেরত আসারা হলো মহিউদ্দিন, আক্তার, বেলাল হোসেন, শামিম হাওলাদার, সজিব হোসেন, আলামিন হোসেন, হাবিবুর রহমান, আমানউল্লাহ, পাপিয়া খাতুন, চায়না খাতুন, ময়না সর্দার ও শিশু শারমিন আক্তার। এদের বাড়ী ফরিদপুর, নড়াইল, বাগেরহাট, নোয়াখালী ও ঢাকা জেলার বিভিন্ন এলাকায়।
বেনাপোল ইমিগ্রেশনের অফিসার ইনচার্জ তরিকুল ইসলাম জানান, দেড় বছর আগে অবৈধ ভাবে সীমান্ত পেরিয়ে তারা ভারতে যায়। সীমান্ত থেকে ভারতের মেদেনিপুর ও পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের হাতে তারা আটক হয়। পুলিশ তাদের জেল হাজতে পাঠায়। এর পর দেড় বছরের সাজা হয় তাদের। পরে, দু’দেশের ¯^রাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের যোগোযোগের পর ট্রাভেল পারমিট এবং স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের মাধ্যমে তাদের দেশে ফেরত পাঠানো হয়।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD