বিজ্ঞপ্তি:
নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
ব্র্যাকের আলু বীজ কিনে কৃষকরা প্রতারিত

ব্র্যাকের আলু বীজ কিনে কৃষকরা প্রতারিত


তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধি
রাজশাহীর তানোরে চলতি মৌসুমে আলু চাষিরা ব্র্যাকের আলুবীজ রোপণ করে ক্ষতির মূখে পড়েছে। জানা গেছে, বেশি ফলনের আশায় উচ্চ মূল্য ব্র্যাকের নিম্নমাণের আলু বীজ রোপণ করে কাঙ্খিত চারা না গজানোয় কৃণকরা আর্থিক ক্ষতির মূখে পড়ে দিশেহারা হয়ে উঠেছে। স্থানীয় সূত্র জানায়, তানোর পৌর এলাকার গোকুল গ্রামের বাসিন্দা ও ব্র্যাকের অনুমোদিত আলূবীজ ডিলার শাহীন মাস্টারের কাছে থেকে উচ্চ মূল্য ব্র্যাকের আলুবীজ কিনে রোপণ করে প্রতারিত হয়েছেন। কৃষকরা অভিযোগ করে বলেন, ব্র্যাকের আলু বীজ ডিলার শাহীন মাস্টার আলু বীজ রিপ্যাক করে নিম্নমাণের আলু বীজআলু বলে কৃষকদের সরবরাহ করেছে, তা না হলে অন্য এলাকায় ব্র্যাকের আলু বীজ রোপণ করে প্রত্যাশা অনুযায়ী আলুর গাছ গজালেও নারায়নপুর মাঠে শাহীন মাস্টারের কাছে থেকে নেয়া আলুবীজ করে অধিকাংশ আলুখেতে কাঙ্খিত আলুর গাছ গজায়নি। ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকরা এবাপারে সংশ্লিষ্ট বিভাগের উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।
তানোরের তালন্দ ইউপির নারায়নপুর এলাকার কৃষক শরিফুল ইসলাম, আব্দুল জব্বার ও গোলাম রাব্বানী অভিযোগ করে বলেন, ডিলার শাহীন মাস্টার তাদের সঙ্গে প্রতারণা করে নিম্নমাণের আলুবীজ সরবরাহ করেছে। তারা আগেও বিষয়টি বুঝতে না পারলেও এখন বুঝতে পেরেছেন। তারা বলেন, তাদের মাঠে প্রায় ৫০ বিঘা জমিতে শাহীন মাস্টারের কাছে থেকে ব্র্যাকের আলুবীজ নিয়ে রোপণ কম বেশী প্রায় সবাই ক্ষতির মূখে পড়েছে। অথচ প্রতি বিঘা আলু চাষে তাদের প্রায় ৩২ হাজার টাকা করে খরচ হবে। কৃষকরা আরো অভিযোগ করে বলেন, ব্র্যাকের বীজ ডিলার শাহীন মাস্টার তাদের বিভিন্ন প্রলোভন দিয়ে উচ্চ মূল্য উন্নত জাতের বীজ আলুর নামে এসব নিম্নমাণের আলু বীজ দিয়েছে। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ব্র্যাকের এক কর্মকর্তা বলেন, এটা স্থানীয় পরিবেশকদের কারসাজি হতে পারে তারা হয়তো ব্র্যাকের আলু বীজ রিপ্যাক করে নিম্নমাণের আলু বীজ আলু বলে কৃষকদের দেয়ায় এই সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। এব্যাপারে তানোর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম জানান, তারা কোনো লিখিত অভিযোগ পাননি। তিনি বলেন, কারো বিরুদ্ধে সুনিদ্রিষ্ট অভিযোগ পেলে অবশ্যই তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এব্যাপারে ব্র্যাকের বীজ ডিলার শাহীন মাস্টার এসব অভিযোগ খন্ডন করে বলেন, তাদের বীজে কোনো সমস্যা নাই। তিনি বলেন, কৃষকদের অসচেতনতা বা বৈরী আবহাওয়ার কারণেও এসব সমস্যা হতে পারে। #

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed BY: AMS IT BD