বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:০৪ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতমতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। "নতুন বাজার পত্রিকা"- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
বরগুনা আমতলীতে ৪’শ পিস ইয়াবাসহ মাদক বিক্রেতা গ্রেফতার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওয়াজেদের ৭৪ তম জন্মদিন জয়পুরহাট জেলা শ্রমিক দল নেতা বারিক এর মৃত্যুতে সাবেক ছাত্রদল নেতা সুমনের শোক সিরাজগঞ্জের সদরে র‌্যাব -১২ এর আভিযানে ৭ জন অসাধু ব্যবসায়ীকে জরিমানা ছাতক থানার সীমান্তবর্তী এলাকা থে‌কে এমসি কলেজের ধর্ষক আটক সাইফুর রহমান প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে আওয়ামী লীগের কর্মসূচি সাবেক যুগ্ম সচিব শাহজাহান সিকদার ও এ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ’র সুস্থতা কমননায় দোয়া শেখ হাসিনা ৭৪ তম জন্মদিন উপলক্ষে প্রবাসী বঙ্গবন্ধু পরিষদ এর পক্ষ থেকে মিলাদ, দোয়া ও তবারক বিতরণ দোয়ারায় যুবলীগের প্রাণ তোফায়েল মানব কল্যাণে নিজেকে উৎসর্গ করতে চান গোলাবাড়ি ইউনিয়নে বলপেইয়া আদামে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী নারী গণধর্ষণ ও ডাকাতি-অপরাধী ৭ জন আটক
উজিরপুর-বানারীপাড়ায় ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেমের কোটি টাকার শিক্ষা বৃত্তি প্রদান।। শিঘ্রই চালু হচ্ছে কোটি টাকার শিক্ষা উপকরন বিতরন কর্মসুচি – সর্ব মহলের সাধুবাদ

উজিরপুর-বানারীপাড়ায় ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেমের কোটি টাকার শিক্ষা বৃত্তি প্রদান।। শিঘ্রই চালু হচ্ছে কোটি টাকার শিক্ষা উপকরন বিতরন কর্মসুচি – সর্ব মহলের সাধুবাদ


ভ্রাম্যমান প্রতিনিধি : কচিকাচা ও কোমলমতি
শিক্ষার্থিরা ও তাদের পরিবারই নয় এবার উজিরপুর
বানারীপাড়ার সকল শ্রেনী পেশার মানুষের দৃস্টি কাড়লেন
বরিশাল-২ (উজিরপুর-বানারীপাড়া) সংসদীয় আসনে
আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশি ক্যাপ্টেন এম
মোয়াজ্জেম হোসেন। উজিরপুর-বানারীপাড়ার ১শ ৬৭ টি
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থিদের মাঝে ১
কোটি টাকার শিক্ষা বৃত্তি প্রদান করে নতুন ইতিহাস
গড়লেন এ জন নন্দিত নেতা। শুধু শিক্ষা বৃত্তিই নয়, এসব
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিঘ্রই চালু করছেন কোটি টাকা
মুল্যের শিক্ষা উপকরন বিতরন কর্মসূচি। বিষয়টি জানা
জানি হওয়ার পরই উজিরপুর-বানারীপাড়ার সকল মহলে ব্যাপক
প্রসংসা কুড়িয়েছেন এ জননেতা।
সূত্র জানায়, বরিশাল-২ উজিরপুর বানারীপাড়া সংসদীয়
আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয় প্রত্যাশি হিসেবে গত
কয়েক বছর ধরে নানান উন্নয়নমুলক কাজের পাশাপাশি
সমাজ সেবা ও জনসেবায় নিজেকে নিযুক্ত করে রেখেছেন
বরিশাল বিভাগ উন্নয়ন ফোরামের সভাপতি ও জননেত্রী শেখ
হাসিনা পরিষদের সভাপতি ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম
হোসেন। নির্বাচনী এলাকা উজিরপুর ও বানানরীপাড়ার
মানুষের সুখ: দু:খে তাদের পাশে থাকার চেষ্ঠা করেছেন
তিনি। বিশেষ করে গরীব মেহনতি মানুষের জন্য তার দ্বার
উন্মুক্ত রেখেছেন অনেক আগ থেকেই। এছাড়া বিভিন্ন
ধর্মিয় প্রতিষ্ঠান বিশেষ করে মসজিদ-মন্দির মাদ্রাসায়
তার অনুদান সবার মুখে মুখে। খেলাধুলা ও সামাজিক
বিভিন্ন কর্মকান্ডে আর্থিক অনুদানসহ নিজেকে
জড়িয়ে রেখেছেন তাদের আপনজন হিসেবে । এছাড়া
নিজের ১৮ টি প্রতিষ্ঠানে হাজার হাজার মানুষকে
চাকুরী দিয়ে প্রতিষ্ঠিত করেছেন ক্যাপ্টেন্ধসঢ়; এম
মোয়াজ্জেম হোসেন ওরফে জয় বাংলা বাবুল। শুধু শিক্ষা
বৃত্তি-শিক্ষা উপকরন ও আর্থিক সহায়তাই নয়, বরিশালের
শেষ সীমান্ত শিবপুর-কোটালী পাড়া এলাকায় ৪শ একর
জমির উপর নির্মিত মাছের ঘের ও ফলের বাগান সাধারন
মানুষের জন্য অনেকটাই উন্মুক্ত রেখে নিজেকে দানবীর
হিসেবেও প্রতিষ্ঠিত করেছেন। এ মাছের ঘের থেকে যে
কোন গরীব মানুষ তাদের প্রয়োজনে মাছ শিকার করতে
পারছেন বলে জানান ওই এলাকার একাধিক মানুষ। শিবপুর
এলাকার মো : করিম ফরাজি নামের এক বাসিন্দা বলেন,
তিনি অনেক শিল্প পতি ও ব্যাবসায়ী দেখেছেন, কিন্তু
ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম হোসেনের মতো এমন উদার মনের
মানুষ দেখেন নি। যে কোন গরীব মানুষের কন্যা কিংবা
ছেলের বিয়ের জন্য যে মাছের প্রয়োজন হয় তা ক্যাপ্টেন
এম মোয়াজ্জেম হোসেনের মাছের ঘের থেকে বিনা

টাকায় পাওয়া যায়। এ এলাকায় মাছের ঘের তৈরীর পর
থেকেই এমন সুবিধা পাচ্ছেন এখানকার মানুষ।
উজিরপুরের সাতলা ইউনিয়ের বাসিন্দা ও ৭ম শ্রেনীর এক
স্কুল ছাত্র আবু সাইদ বলেন, ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম
হোসেনের মতো ভালো মানুষের বড়ই অভাব। তিনি
আমাদের জন্য কোটি টাকার শিক্ষা বৃত্তি চালু করেছেন।
এছাড়া তিনি বিভিন্ন স্কুল কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য
কোটি টাকার শিক্ষা উপকরন বিতরন করবেন বলে শুনেছি।
এর চেয়ে আমাদের আর কিছুই চাওয়ার নেই। শুধু সাতলাই
নয়, উজিরপুর বানারীপাড়ার অসংখ্য শিক্ষার্থি ও তাদের
অভিভাবকরা ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম হোসেনের এমন
কর্মকান্ডকে স্বাগত জানিয়েছেন।
উজিরপুরের কারফা এলাকার বাসিন্দা ও কারফা হরি ও দূর্গা
মন্দির পুজা কমিটির সভাপতি বাবু স্বদেশ কুমার
বিশ^াস বলেন, ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম হোসেনের মতো
দানবীর মানুষের বড়ই অভাব। তিনি বিভিন্ন ধর্মিয়
প্রতিষ্ঠানে যে ভাবে দান করছেন তা সত্যিই প্রসংশনীয়।
এ বিষয়ে জল্লা আইডিয়াল কলেজের প্রভাষন নিখিল চন্দ্র
বিশ্বাস বলেন, ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম হোসেন
বিভিন্ন স্কুল কলেজের মেধাবীদের যে শিক্ষা বৃত্তি প্রদান
করেছেন তা সত্যিই প্রসংশনীয়। এমন কাজ করতে হলে
উদার মনের মানুষ হতে হয়। তিনি এ আসনে প্রার্থি হলে
মানুষ সত্যিই তাকে বিপুল ভোটের ব্যাবধানে বিজয়ী
করবে। বেসরকারী একটি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা মৃনাল
কান্তি বাড়ৈ ওরফে সবুজ বলেন, ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম

হোসেন একজন ভালো মানুষ। তিনি এখানে এমপি
প্রার্থি হলে সকল শ্রেনীর মানুষের সমর্থন পাবেন। এ
আসনে তার মতোই একজন ভালো মানুষের দরকার যে
সরকারী বরাদ্দের পাশাপাশি নিজের টাকাও খরচ করতে
পারবেন। তিনি বলেন, আমরা সত্যিই অবহেলিত ও বঞ্চিত।
আমাদের এখানে যারা এমপি হন তারা মানুষকে দিতে নয়,
মানুষের কাছ থেকে নিতে আসেন। এটা আমাদের জন্য
সত্যিই দূর্ভাগ্য। বানারীপাড়ার চাখার এলাকার বাসিন্দা
মো: সাইফুল ইসলাম বলেন, ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম
যেভাবে মানুষের মন জয় করে নিচ্ছেন তাতে অন্য কোন
প্রার্থি তার ধারে কাছেও নেই। বরিশাল-২ আসনে তার
মতোই একজন দানবীর এমপি দরকার। তাহলেই অবহেলিত এ
এলাকার মানুষের ভাগ্যের উন্নয়ন হবে।
এ বিষয়ে ক্যাপ্টেন এম মোয়াজ্জেম হোসেন বলেন, তিনি
এমপি হওয়ার জন্য নয়, বিবেকের তাড়নায় এসব কাজ
করছেন। তিনি দেখেছেন, টাকার অভাবে অনেক শিক্ষার্থি
বই খাতা কিনতে পারে না, এমনকি পড়নের জন্য ভালো
পোশাক কিনতে পারে না। এসব মেধাবী শিক্ষার্থিদের
কথা বিবেচনা করেই তিনি শিক্ষা বৃত্তি চালু ও শিক্ষা
উপকরন বিতরনের উদ্যোগ নিয়েছেন। আগামিতে এর
ধারাবাহিকতা বজায় রাখবেন বলেও জানান ক্যাপ্টেন এম
মোয়াজ্জেম হোসেন।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD